জননেত্রী শেখ হাসিনাকে আবারো ক্ষমতায় দেখতে চাই – এমপি রবি

কর্তৃক porosh
০ কমেন্ট 51 ভিউস

আহাদুর রহমান জনি:

৫২ বছরে ইসলামের দোহায় দিয়ে যারা রাজনীতি করেছে, যারা জাতীয় সংসদকে অপমানিত করেছে তাদের সম্পর্কে আপনারা সবই জানেন সবই বুঝেন। তারপরও এই জনপদের কিছু কিছু মানুষ তাদের অন্ধের মতো বিশ্বাস করে। আমরা হাজার বার বলার পরও তারা বিপথ থেকে সরে আসতে চায়না। এই জনপদের মানুষকে বোকা বানিয়ে তারা আমাদের স্বাধীনতাকে কলুষিত করেছে। তাদের আর সুযোগ দেওয়া হবে না। জননেত্রী শেখ হাসিনাকে আমরা ৫ম বারের মতো রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় দেখতে চাই। প্রধান অতিথির বক্তব্যে কথাগুলো বলেন সাতক্ষীরা সদর-২আসনের সংসদ সদস্য নৌ-কমান্ডো বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি।

জাঁকজমকপূর্ণ ও বর্ণিল আয়োজনে ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে মহান স্বাধীনতার মাস উপলক্ষে সাতক্ষীরায় বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি সমর্থক গোষ্ঠীর উদ্যোগে বিশাল জনসভা ও জয় বাংলা কনসার্ট অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার (০৩ মার্চ) বিকালে সাতক্ষীরা শহিদ আব্দুর রাজ্জাক পার্কে বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি সমর্থক গোষ্ঠীর আয়োজনে ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মীর তানজির আহমেদ এর সার্বিক ব্যবস্থাপনায় বিশাল জনসভা ও কনসার্টটি অনুষ্ঠিত হয়।

“বিগত ১৪ বছরের উন্নয়ন কর্মকান্ড অত্যন্ত সুন্দরভাবে উপাস্থাপন করেছেন আমাদের নেতৃবৃন্দ। ৭ই মার্চ একটি ঐতিহাসিক দিন আমাদের জন্য। জাতির পিতার এ দিনের ভাষণ ওয়ার্ল্ড হেরিটেজে সংরক্ষিত রয়েছে। আমরা বাঙালি জাতি বিশ্বের দরবারে বলতে পারি আমরা বঙ্গবন্ধুর দেশের মানুষ। আমরা বাংলাদেশের মানুষ। বঙ্গবন্ধুর ডাকে আমরা ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধে অংশ গ্রহণ করেছিলাম। ৩০ লক্ষ মানুষ শহীদ হয়েছিলো এই মাটির জন্য।

আমরা আজকের এই দিনে সেই সব শহিদদের শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করছি। আমরা এই জনপদকে বারবার জানিয়ে দিতে চাই ১৩ সালে যে তান্ডব ও সহিংসতা এবং সন্ত্রাসী কর্মকান্ড হয়েছিল এই জনপদে আমরা সাতক্ষীরার মানুষ যারা মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেছিলাম তারাও মাথা উঁচু করে কথা বলতে পারিনা। আমাদেরকে অসম্মান করা হয়। আমাদেরকে ঘৃর্ণার চোখে দেশের অন্য প্রান্তের মানুষেরা। যারা জঙ্গি সৃষ্টি করে, যারা সন্ত্রাস সৃষ্টি করে তারা সমাজকে কুলসিত করতে চায়। এই জনপদকে উত্তপ্ত করতে চায় তাদের বিরুদ্ধে স্বোচ্ছার ও সতর্ক থাকতে হবে। আমরা মহান স্বাধীনতার মাসে জনসভা ও জয় বাংলা কনসার্টের মধ্য দিয়ে মানুষদের জানান দিতে চায় বঙ্গবন্ধুর সৈনিকরা আজো বেঁচে আছে।

জনসভায় সম্মানিত অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মো. নজরুল ইসলাম প্রমুখ।

বিশাল জনসভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, জেলা আওয়ামী লীগের নির্বাহী সদস্য এস এম শওকত হোসেন, শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক শেখ এজাজ আহমেদ স্বাপন, দপ্তর সম্পাদক শেখ হারুন উর রশিদ, কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক ডা. মুনসুর আহমেদ, সাতক্ষীরা পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. সাহাদাৎ হোসেন, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জাতীয় মহিলা সংস্থা সাতক্ষীরা জেলা শাখার চেয়ারম্যান জ্যোৎস্না আরা, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সরদার নজরুল ইসলাম, জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি কাজী হাশিম উদ্দিন হিমেল, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ফারুক আহমেদ, ঝাউডাঙ্গা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অমরেন্দ্র নাথ ঘোষ প্রমুখ। এসময় উপস্থিত ছিলেন সাতক্ষীরা পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি নারায়ণ চন্দ্র মন্ডল, সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ রাফিনুর ইসলাম, পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শেখ মুসফিকুর রহমান মিল্টন, পৌরসভার ৭নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর কাউন্সিলর শেখ জাহাঙ্গীর হোসেন কালু, সাধারণ সম্পাদক মো. রেজাউল করিম, পৌরসভার ৯নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি সমীর কুমার বসু, সাধারণ সম্পাদক লিটন মির্জা, পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আব্দুল আজিজ মাস্টার, সাধারণ সম্পাদক শেখ আব্দুস সেলিম পৌরসভার ১নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মো. আব্দুল বারী, সাধারণ সম্পাদক মো. হাসানুজ্জামান, পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. মতিয়ার রহমান, সাধারণ সম্পাদক পৌরসভার প্যানেল মেয়র শেখ আনোয়ার হোসেন মিলন, পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আনারুল ইসলাম রনি, পৌরসভার ২নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদ, পৌরসভার ১নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহবায়ক আব্দুস সালাম, ঝাউডাঙ্গা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. রমজান আলী বিশ^াস। এছাড়ও উপস্থিত ছিলেন, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা নজরুল ইসলাম যুবলীগ নেতা এ্যাড তামিম আহমেদ সোহাগ, মৎসজীবীলীগের সভাপতি মীর আজহার আলী শাহিন ঝাউডাঙ্গা ইউপি চেয়ারম্যান মো. আজমল উদ্দীন, বল্লী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. বজলুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুর রহমান লাল্টু, লাবসা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি এ্যাড. শেখ মুস্তাফিজুর রহমান শাহনওয়াজ, সাধারণ সম্পাদক আবু সুফিযান সজল প্রমুখ। স্বাধীনতার মাস উপলক্ষে বিশাল জনসভা বিকাল ৪টার পরেই লোকে লোকারণ্য হয়ে সাতক্ষীরা শহিদ আব্দুর রাজ্জাক পার্ক জনসমূদ্রে পরিনত হয়। জনসভা শেষে ভারত-বাংলাদেশের শিল্পীদের পরিবেশনায় জয় বাংলা কনসার্ট অনুষ্ঠিত হয়। এসময় জেলা আওয়ামী লীগ, উপজেলা আওয়ামী লীগ, পৌর আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ-যুবলীগ, মহিলা আওয়ামী লীগ, বঙ্গবন্ধু পরিষদ, শ্রমিক লীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, মৎস্যজীবী লীগ, তাঁতীলীগসহ আওয়ামী লীগের অংগ ও সহযোগি সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। সমগ্র অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন জেলা বঙ্গবন্ধু পরিষদের সভাপতি মকসুমুল হাকিম।



রিলেটেড পোস্ট

মতামত দিন

error: Content is protected !!