বিজিবি সদস্য আরিফ রায়হানের পরকীয়ায় বাঁধা দেওয়ায় স্ত্রী নির্যাতনের শিকার

কর্তৃক Ahadur Rahman Jony
০ কমেন্ট 14 ভিউস

আশাশুনি প্রতিনিধি: বিজিবি আরিফ রায়হানের পরকীয়ায় বাঁধা দেওয়ায় স্ত্রী রেখা খাতুন নির্যাতনের স্বীকার হয়েছে। প্রায় সময় তাকে মারধর করে, এমনকি যৌতুকের দাবি করে বার বার তাকে নির্যাতন চালায়। এমনি লিখিত অভিযোগে জানান সাতক্ষীরা সদরের দেবনগর গ্রামের আরিফ রায়হানের স্ত্রী রেখা খাতুন। অভিযোগে আরো বলেন তার বিয়ে হয় ২০১৮ সালের ০৬-ই ফেব্রুয়ারি। বিয়ের পর থেকে তার স্বামী পরকীয়ার সম্পর্ক গড়ে তোলে, তাকে মারধর করে। যৌতুক দাবি করে। এ পর্যন্ত ৩ লক্ষ টাকা, ফ্রিজ, সোনার আংটি ও বিভিন্ন আসবাপত্র দিয়েছে সংসার করার জন্য। কিন্তু তাতে সে খ্যান্ত হয়নি তারপরও যৌতুক দাবি করে মারধর করে বাপের বাড়ি আশাশুনি থানা কুল্যা গ্রামে রেখে যায়। এজন্য এবছর ০২ জুলাই বিচার করে কুল্যা গ্রামের ইউপি সদস্য আলহাজ্ব আব্দুল মাজেদ গাজী। এরপর ২৫ এপ্রিল বিচার করে কুল্যা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম। সর্বশেষ বিচার করে ৮-ই আগষ্ট বর্তমান চেয়ারম্যান হারুন চৌধুরী। বিচারে তাকে স্বামীর ঘরে পাঠিয়ে দেওয়া হয়। সেখানে ৯ই আগষ্ট প্রচন্ড মারধর করে তাকে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করে দেয়। ২ দিন রাখার পর তার স্বামী আবারও বাপের বাড়ি রেখে যায়। এমন অবস্থায় তিনি ন্যায় বিচারের জন্য জেলা প্রশাসকসহ উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

রিলেটেড পোস্ট

মতামত দিন

error: Content is protected !!