ভালোবাসা দিবসকে ঘিরে ফুলের সাজে নারীরা

0 ১১০

এস,কে.ফেরদৌস আহমেদ : ফুল ভালোবাসে না,এমন কোন মানুষ নেই। মনকে উৎফুল্য করে তুলতে,নতুন সাজে সাজতে,ফুলের বিকল্প নেই। বছর জুড়ে ফুলের চাহিদা থাকলেও,বিশেষ কোন দিবসে ফুলের চাহিদা বাড়ে। ফুলের চাহিদা বেশি বাড়ে ভালোবাসা দিবসকে কেন্দ্র করে এবং ফুলের দামও বেড়ে যায় আর এই সকল দিবসে বেশি চাহিদা আসে গোলাপ ফুলের। ফুল শুধু কী প্রেম নিবেদনের ক্ষেত্রে ব্যবহার করে থাকে মানুষ ? বিভিন্ন ভাবে ভাবে ফুলকে ব্যবহার করা হয়ে থাকে,বাসাবাড়ি,অফিস,দোকানঘরসহ গাড়িতে পর্যন্ত ফুলের ব্যবহার দেখা যায়। এ থেকে বোঝা যায় বর্তমান ফুলের প্রতি মানুষের ভালবাসা কেমন। সুধু কী তাই ফুলের সাজের রীতি অনেক দিন ধরেই জনপ্রিয়। কিন্তু ফুল সকল সময় মেয়েদের সাজে দেখা যায়,কখনো কানে গুজে রাখে কখনো চুলে খোঁপাতে,আর এই সব বিশেষ দিন গুলাতে ফুল দিয়ে কেমন সাজে তারা ?
অনেকেই বেশ কয়েক রকমের ফুল মিলিয়ে চুলের সাজে কাজে লাগান। এদিন সাদা ফুল দিয়ে মালা বানিয়ে হাতে অথবা চুলে জড়িয়ে নিতে দেখা যায় অনেককে। সামনের চুলগুলো একটু কোঁকড়া করে মাঝ বরাবর সিঁথি কেটে এক পাশে বা পেছনে খোঁপা তাতে ফুলের মালা দিয়ে রাখে,কেউবা আবার চুল ছেড়েও সেই মালা হাতে নিয়ে ঘুরতে দেখা যায় এভাবে চুলের বেণিতে ফুলের ব্যবহার করে থাকে। বেণির গোড়ায় আটকে রাখে পছন্দের কোনো বড় আকারের একটি ফুল। লম্বা বেণির ভাঁজে ভাঁজে ছোট ছোট ফুল গেঁথে নিতে দেখা যায়। অনেকেই চুলে ফুলের মুকুট পরেন। বিশেষ এই দিনকে ঘিরে শহরের অলিগলি এমনকি ফুটপাতেও বাহারি ফুল নিয়ে বসেন দোকানিরা। আপনার বাজেটের মধ্যে পাবেন পছন্দের ফুল, ফুলের মালা ও মুকুট। চাইলে নিজের পছন্দমতো ফরম্যাট দিয়েও ফুল বিক্রেতার কাছ থেকে বানিয়ে নিতে পারবেন ফুলের মালা ও মুকুট। ফুলের সাজের সঙ্গে হালকা মেকআপ নিতে এখন আর কেউ ভুল করে না। শাড়ির সঙ্গে মিলিয়ে কপালের টিপ, হাতের চুড়ি সব মিলিয়ে বাঙালিয়ানা সাজে সেজে বের হয় উঠতি বয়সের তরুণীরা। শুধুকি রমণীরা ? না সকল বয়সি নারীদেরও দেখা যায় এসয় ফুল দিয়ে নিজেকে বিভিন্ন ভাবে সাজিয়ে তুলতে। আর ঠিক এই সময় ফুল বিক্রেতাদের একটু বাড়তি আয় আসে বলে জানান,সাতক্ষীরা শহরের এক ফুল বিক্রেতা। তিনি বলেন নিউমার্কেট থেকে মিনি মার্কেট পর্যন্ত প্রায় ১০ টার অধিক ফুলের দোকান রয়েছে এবং এই ভালোবাসা দিবসকে কেন্দ্র করে আরো কিছু নতুন দোকান দেওয়া হয়েছে শহরের ফুটপথে,কারণ এই সময়টা তে তুলনা মূলক ফুলের দাম একটু বেশি এবং গোলাপের দাম অনেক বেশি হয়ে থাকে।